রবিবার, ২২ নভেম্বর ২০২০ ৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
অ+
অ-

কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি দেবে ৩টি যোগ ব্যায়াম

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ

কোষ্ঠকাঠিন্য একটি সাধারণ সমস্যা। করোনার কারণে ঘরবন্দি অবস্থায় আমাদের হজমের সমস্যা আরও বেড়েছে। কারণ ঘরে থাকার কারণে পরিশ্রম অনেক কম হচ্ছে। আর এর ফলে এই ক্ষেত্রে নতুন শব্দ ব্যবহার করা হচ্ছে, সেটি হলো- ‘কোয়ারেন্টাইন কোষ্ঠকাঠিন্য’।

কোষ্ঠকাঠিন্য আপনাকে কেবল অস্বস্তিই দেবে না, এটি পুরো দিনটিকে নষ্ট করতে পারে। আপনি আপনার কাজে মনোনিবেশ করতে পারবেন না, কিছু খেতে পারবেন এবং আপনার সম্পূর্ণ ফোকাস আপনার হজম স্বাস্থ্যের দিকে থাকবে।

অনেক লোক ওষুধের মাধ্যমে এই সমস্যার সমাধান করে আবার অনেকে ঘরোয়াভাবে প্রতিকারের চেষ্টা করে। তবে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে আরও নিরাপদ ও প্রাকৃতিক উপায় হলো যোগ ব্যায়াম। যোগব্যায়াম কেবল আপনার দেহকে নমনীয় এবং টোন করতে সহায়তা করে না, এর কিছু আশ্চর্যজনক স্বাস্থ্য উপকারও রয়েছে। চলুন এমন তিনটি যোগব্যায়াম সম্পর্কে জেনে নিই যেগুলো কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি দেবে।

পবনমুক্তাসন

প্রথমে একটি ম্যাটে আরাম করে বসুন। দুই পা সামনের দিকে লম্বা করুন। এবার দুই হাতের সাহায্য নিয়ে শরীর পেছন দিকে এলিয়ে দিয়ে পিঠের উপর চিৎ হয়ে শুয়ে পড়ুন। কয়েক সেকেন্ড বিশ্রাম করুন। হাত মাটিতে রাখুন। হাতের তালু মাটিতে লাগানো থাকবে। এবার লম্বা শ্বাস নিন এবং ডান পা ধীরে ধীরে ৯০ ডিগ্রী এঙ্গেলে উপর দিকে তুলুন। পায়ের আঙুল ঊর্ধ্বমুখী থাকবে। এবার হাঁটু ভাঁজ করুন। হাতের তালুর সাহায্যে আপনার হাঁটু চাপ দিয়ে বুকের সাথে লাগাতে চেষ্টা করুন। এবার ধীরে ধীরে মাথা তুলে থুঁতনি হাঁটুতে লাগানোর চেষ্টা করুন। চোখ বন্ধ করুন। শ্বাস প্রশ্বাস স্বাভাবিক রাখুন। এভাবেই অপেক্ষা করুন ১-৫ মিনিট (যতক্ষণ আপনি পারবেন)। আবার লম্বাকরে শ্বাস নিতে নিতে ধীরে ধীরে আগের অবস্থানে চলে আসুন। শবাসনে বিশ্রাম করুন কিছুক্ষণ। এবার বাম পা দিয়ে পবনমুক্তাসন করুন। এভাবে ৪-৬ রাউন্ড করুন।

গারল্যান্ড পোজ- মালাসানা

মহিলাদের জন্য মালাসানা একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ আসন। এটি কেবল শিথিল করতে, সম্প্রীতির অনুভূতি বজায় রাখতে সহায়তা করে না, তবে লসিকা প্রবাহকে উদ্দীপিত করে এবং ফাইব্রয়েড, সৌম্য নোড এবং ডিম্বাশয়ের প্রদাহ প্রতিরোধ করে।

পা বিস্তৃতভাবে দিয়ে মাদুরের উপর দাঁড়ান। হাঁটু বাঁকান এবং স্কোয়াট অবস্থানে আসতে আপনার নিতম্ব নীচে করুন। হাতের তালু এক সাথে আনার জন্য কনুইগুলি বাঁকান এবং হাঁটুতে বাহুটি আপনার অভ্যন্তরীণ হাঁটুর বিপরীতে টিপুন। মেরুদণ্ড নিরপেক্ষ, ঘাড় সোজা এবং কাঁধকে শিথিল রাখুন। ৪-৫ শ্বাসের জন্য এই ভঙ্গিতে থাকুন এবং তারপর আরাম করুন।

বালাসানা অথবা চাইল্ড পোজ

আপনার গোঁড়ালির উপর ভর দিয়ে বসুন। এরপর সামনের দিকে একটু ঝুঁকে বসুন। তারপর আসতে আসতে আপনার কপাল মাটিতে ঠেকিয়ে রাখুন। এরপর ধীরে ধীরে আপনার বুক উরুতে স্পর্শ করার চেষ্টা করুন। সেই পজিশনেই কিছুক্ষণ থাকুন। এরপর আসতে আসতে সোজা হয়ে উঠে বসুন।

এতে আপনার নার্ভের সিস্টেম কিছুক্ষণের জন্য শান্ত হবে। ঘাড়েরও বিশ্রাম হবে। তবে আপনার পিঠে কিংবা হাঁটুতে যদি কোনও সমস্যা থাকে তাহলে ভুলেও এই যোগ করবেন না।

print

আন্তর্জাতিক : আরো পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন