মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২ ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
অ+
অ-

মুরাদনগরে পুলিশী নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে অর্ধ লক্ষ টাকার গাছ কর্তন

মোঃ মোশাররফ হোসেন মনিরঃ

মুরাদনগর বার্তা টোয়েন্টিফোর ডটকমঃ কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার ধামঘর ইউনিয়নের সিদ্ধেশরী গ্রামের উত্তর পাড়া মফিজুল ইসলামের বাড়ি থেকে মুরাদনগর থানা পুলিশের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে পাশের বাড়ির গিয়াস উদ্দিনের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী দিন দুপুরে প্রায় অর্ধ লক্ষ টাকার বনজ গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জানা যায়, উপজেলার সিদ্ধেশরী গ্রামের উত্তর পাড়া মৃত সিরাজুল ইসলামের ছেলে মো: মফিজুল ইসলাম ও তার পরিবারের সকল সদস্য ঢাকায় বসবাস করে। বাড়ির পাশের মৃত আমিন উদ্দিনের ছেলে মো: গিয়াস উদ্দিন ও মফিজুল ইসলামের পাশাপাশি বাড়ি হওয়ার সুবাদে ও ঢাকায় বসবাসের কারনে বাড়ীর পাশের ভূমিতে যৌথ ভাবে রোপনকৃত বিভিন্ন প্রজাতির বিশাল আকৃতির ৫টি বনজ গাছ যার বাজার মূল্য প্রায় পঞ্চাশ হাজার টাকা, গত শনিবার গিয়াস উদ্দিন নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী কেটে নিয়ে যায়। পূর্বে এ বিষয়টি স্থানীয় ভাবে একাধিক বার আপোস মিমাংসার চেষ্টা করা হলে গাছ কর্তনকারী গিয়াস উদ্দিন মেনে না নিয়ে গত মঙ্গলবার মফিজুল ইসলাম গংদের বিরুদ্ধে মুরাদনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগের পেক্ষিতে মুরাদনগর থানা পুলিশ এক সপ্তাহের জন্য উক্ত ভূমিতে সকল প্রকার কাজ বন্ধ রাখার মৌখিক নির্দেশ দেয়। পুলিশের এ নিষেধাজ্ঞাকে উপেক্ষা করে অভিযোগ দায়েরের  পর দিন গিয়াস উদ্দিন একদল সন্ত্রাসী নিয়ে জোর করে উক্ত ভূমির গাছ গুলো কেটে নিয়ে যায়। পরে মফিজুল ইসলামের ছোট ভাই সাইদুর রহমান সুমন সন্ত্রাসীদের মাধ্যমে গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন।

মফিজুল ইসলাম বলেন, আমরা বাড়ীতে না থাকার সুবাদে আমার ভূমিতে রোপনকৃত গাছ গুলো সন্ত্রাসীরা জোরপূর্বক কেটে নিয়ে যায়। এঘটনায় আমরা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছি।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, থানায় দু’পক্ষের দইটি অভিযোগ পেয়েছি। এক সপ্তাহের নিষেধাজ্ঞার বিষয়টি স্বীকার করে তিনি বলেন গাছ কাটার বিষয়টি আমার জানা নেই। বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি।

print

কুমিল্লা : আরো পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন