মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২ ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
অ+
অ-

মুরাদনগরে মাদক ব্যাবসায়ীদের হামলায় এসআইসহ ৫পুলিশ আহত

মো: মোশাররফ হোসেন মনিরঃ

০৭ মে ২০১৫ ইং (মুরাদনগর বার্তা ডটকম):

মুরাদনগর উপজেলার পূবধৈইর পূর্ব ইউনিয়নের নবীয়াবাদ গ্রামে মাদক ব্যবসায়ী ও মাদক মামলার আসামী ধরতে গত বুধবার সন্ধা ৭ টায় গিয়ে হামলার শিকারহন মুরাদনগর থানার এসআই সহ ৫ পুলিশকে আটক করে রাখে মাদক ব্যাবসায়ীরা। এ ঘটনার অভিযোগে ৭ জনকে আটক করে পুলিশ। এ সময় পুলিশ ৭ রাউন্ড গুলি ছোড়ে।

আটক কৃতরা হলেন, নবীয়াবাদ গ্রামের মৃত মঙ্গল মিয়া মঙ্গল মিয়ার ছেলে আক্কাছ মিয়ার (৪০), আ: মালেকের ছেলে অলেক হেসেনে (৪৮), মৃত আসিফ উদ্দিনের ছেলে জলিল জালালি(৬৫), আ: খালেক মিয়ার ছেলে আলম (৩০), জাহাঙ্গীর মেম্বারের স্ত্রী মমতাজ বেগম, শহিদ মিয়ার ছেলে মনির হোসেন(২৫) ও আ: খালেক মিয়ার ছেলে জালাল(২৫)।

জানা যায়, বুধবার রাতে থানার এসআই নুরুল আলমের নেতৃত্বে ৫ সদস্যের একদল পুলিশ উপজেলার নবীয়াবাদ গ্রামে ও পূবধৈইর পূর্ব ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মাদক স¤্রাট জাহাঙ্গীর মেম্বারসহ একটি মাদকচক্রকে গ্রেফতার করতে অভিযানে যায়। এ সময় মাদক স¤্রাট জাহাঙ্গীর, লিল মিয়া, আব্বাস, ছেতু,সফিকসহ একদল সন্ত্রাসী পুলিশকে ঘিরে আক্রমন চালায়। সন্ত্রাসীদের হামলায় এসআই নুরুল আলমসহ ৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়। এখবর পেয়ে মুরাদনগর থানার এস আই মাহমুদুল হাছান রুবেলের নেতৃত্বে এক প্লাটন পুলিশ ঘটনার স্থল থেকে আটক কৃত পুলিশ দের  উদ্ধার করতে গেলে মাদক ব্যবসায়ীরা তাদের উপর ও হামলা করলে পরিস্থিতি নিয়নত্রন আনতে এ সময় পুলিশ ৭ রাউন্ড গুলি ছোড়ে।বিপুল পরিমান পুলিশ গিয়ে আহত পুলিশ সদস্যদেরকে উদ্ধার করে। ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে ৭জনকে আটক করে পুলিশ।

মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, নবীয়াবাদ গ্রামে দীর্ঘদিন যাবত জাহাঙ্গীর মেম্বারসহ বেশ কয়েকজন মিলে এলাকায় মাদকের রমরমা ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল। এদিকে পুলিশের উপড় হামলার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে গতকাল বৃহসপতিবার আহত এসআই নুরুল আলম বাদী হয়ে মাদক দ্রব্য ও পুলিশের উপর হামলার অভিযোগে ১৭ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা ২০/২৫ ব্যাক্তির বিরুদ্ধে দু’টি মামলা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার দুপুরে আটক কৃতদের কুমিল্লা জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

print

আরো পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন