বুধবার, ২৫ মে ২০২২ ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
অ+
অ-

হোমনায় পাওনা টাকা না দেওয়ায় হাত-পা কেটে নিল সন্ত্রাসীরা

pc homna 29-07-2015তপন সরকার, হোমনা প্রতিনিধিঃ

রোজ মঙ্গলবার, ২৮ জুলাই ২০১৫ ইং (মুরাদনগর বার্তা ডটকম):

কুমিল্লার হোমনায় পাওনা টাকা নিয়ে বিরোধের জের ধরে সাদেক মিয়া (৩৫) নামের এক ব্যাক্তির হাত পা কেটে নিল সন্ত্রাসীরা। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার ঘনিয়ারচর গ্রামে এই নৃশংস ঘটনাটি ঘটে ।

আহত সাদেক মিয়া ওই গ্রামের উত্তর পাড়ার মৃত লিল মিয়ার ছেলে। মুমূর্ষু অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সাদেক এলাকার কতিপয় জুয়ারির নিকট সুদে টাকা লগ্নি করত। সেই পাওনা টাকা পয়সা নিয়ে তাদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো। এরই জের ধরে গতকাল দুপুরে সাদেক ওই গ্রামের বড় চকের বাড়ীর উত্তর পাশের জমিতে গেলে সেখানে ওৎ পেতে থাকা সন্ত্রাসীরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে তাকে এলাপাথারিভাবে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে।

সন্ত্রাসীরা তার বাম পা সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন করে ফেলে। এছাড়া তার দুই হাত, পেটে বিক্ষিপ্তভাবে কুপিয়ে আলগা করে ফেলে। গতকাল বিকেলে স্থানীয়রা ওই এলাকার বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁিজ করে বিচ্ছিন্ন পা’টি উদ্ধার করে দ্রুত ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়।

বিকেলে রোগীর সাথে থাকা স্থানীয় ইউপি মেম্বার মো. আবুল হোসেন মেম্বার ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে মোবাইল ফোনে জানান, জুয়ারীরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে আগে থেকেই জুয়া খেলার ওই স্থানে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে অবস্থান করছিলো।

সাদেক সেখানে যাওযা মাত্রই একই গ্রামের হক মেম্বারের ছেলে শেখ সাদি (২৫), আব্দুল বারিকের ছেলে সুমন (২৭), শ্যাম মিয়ার ছেলে ইসমাইল (২৮), হাজী মোশারফ মিয়ার ছেলে বিপ্লব (২৪), মুসলেম মিয়ার ছেলে শওকত (২৫), আব্দুস সাত্তারের ছেলে মাসুমসহ (২৫) অজ্ঞাত জুয়ারি সন্ত্রাসীরা তার উপর নৃশংস হামলা চালায়।

এতে তার বাম পা সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন করে ফেলে এবং দুই হাত ও পেটসহ সারা শরীরে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।

হোমনা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. কামরুজ্জামান সিকদার পিপিএম বলেন, ‘আমরা খবর পাওয়ামাত্রই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ঘটনাস্থল থেকে রক্তমাখা মাটিসহ আলামত পাওয়া গেছে। পাশের একটি খোলা ঘর থেকে তাসের প্যাকেট পাওয়া গেছে। ধারনা করা হচ্ছে জুয়া খেলা নিয়ে অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এই ঘটনা ঘটেছে। অভিযোগ প্রাপ্তি সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

print

আরো পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন