ঢাকা ১০:০৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ইন্টারনেটবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য মহাকাশে ৩ হাজার স্যাটেলাইট পাঠাবে

তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্কঃ

বিশ্বের ইন্টারনেটবঞ্চিত জনগোষ্ঠীকে দ্রুতগতির ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে মহাকাশে তিন হাজারের বেশি কৃত্রিম উপগ্রহ বা স্যাটেলাইট বসানোর পরিকল্পনা নিয়েছে অনলাইনভিত্তিক বাণিজ্য প্রতিষ্ঠান আমাজন।

‘প্রজেক্ট কুইপার’ নামের ওই প্রকল্পের জন্য চলতি সপ্তাহে নতুন কর্মী চেয়ে বিজ্ঞাপন দিয়েছে আমাজন।

আমাজনের এক বিবৃতির ভিত্তিতে ব্রিটেনভিত্তিক গণমাধ্যম দ্য ইনডিপেনডেন্ট জানায়, কুইপার প্রজেক্ট পৃথিবীর নিম্ন কক্ষপথে একগুচ্ছ কৃত্রিম উপগ্রহ বসানোর জন্য বেজোসের মহাকাশসম্পর্কিত সর্বশেষ উদ্যোগ। এর মাধ্যমে সারাবিশ্বে ইন্টারনেট সেবায় পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য উচ্চগতির ব্রডব্যান্ড সেবা দেওয়া সম্ভব হবে। বিবৃতিতে আরও জানানো হয়, ব্রডব্যান্ড সেবায় প্রবেশের সামান্যতম সুযোগ থেকে বঞ্চিত লাখ লাখ লোকের সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে এই দীর্ঘমেয়াদি প্রকল্প নেওয়া হয়েছে।

জেফ বেজোস ইতিমধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় পরিচালিত ‘ব্লু অরিজিন’ নামের একটি মহাকাশ প্রকল্পে ১ বিলিয়ন ডলার ব্যয় করেছেন।

গণমাধ্যম সিএনবিসি জানায়, ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের আগামী প্রজন্মের সেবা দেওয়ার দৌড়ে আমাজন অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যোগ দিয়েছে। আর এ লক্ষ্যে মহাকাশ গবেষণা সংস্থা স্পেসএক্সের কৃত্রিম উপগ্রহ নিয়ে কাজ করা সাবেক একদল কর্মকর্তাদের নিয়োগ দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

স্পেসএক্সের প্রধান এলন মাস্ক গত বছর মহাকাশে দুটি কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠিয়েছেন তার ‘স্টারলিংক’ প্রকল্পের আওতায়। তার এই প্রকল্পে প্রায় সাড়ে চার হাজার কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠানোর লক্ষ্যে নির্ধারণ করা হয়েছে।

এ ধরনের সেবা নিয়ে কাজ করছে লিওস্যাট ও কানাডার টেলেস্যাটের মতো প্রতিষ্ঠান।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ

ইন্টারনেটবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর জন্য মহাকাশে ৩ হাজার স্যাটেলাইট পাঠাবে

আপডেট সময় ১০:০১:০৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১২ এপ্রিল ২০১৯
তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্কঃ

বিশ্বের ইন্টারনেটবঞ্চিত জনগোষ্ঠীকে দ্রুতগতির ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে মহাকাশে তিন হাজারের বেশি কৃত্রিম উপগ্রহ বা স্যাটেলাইট বসানোর পরিকল্পনা নিয়েছে অনলাইনভিত্তিক বাণিজ্য প্রতিষ্ঠান আমাজন।

‘প্রজেক্ট কুইপার’ নামের ওই প্রকল্পের জন্য চলতি সপ্তাহে নতুন কর্মী চেয়ে বিজ্ঞাপন দিয়েছে আমাজন।

আমাজনের এক বিবৃতির ভিত্তিতে ব্রিটেনভিত্তিক গণমাধ্যম দ্য ইনডিপেনডেন্ট জানায়, কুইপার প্রজেক্ট পৃথিবীর নিম্ন কক্ষপথে একগুচ্ছ কৃত্রিম উপগ্রহ বসানোর জন্য বেজোসের মহাকাশসম্পর্কিত সর্বশেষ উদ্যোগ। এর মাধ্যমে সারাবিশ্বে ইন্টারনেট সেবায় পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য উচ্চগতির ব্রডব্যান্ড সেবা দেওয়া সম্ভব হবে। বিবৃতিতে আরও জানানো হয়, ব্রডব্যান্ড সেবায় প্রবেশের সামান্যতম সুযোগ থেকে বঞ্চিত লাখ লাখ লোকের সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে এই দীর্ঘমেয়াদি প্রকল্প নেওয়া হয়েছে।

জেফ বেজোস ইতিমধ্যে যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় পরিচালিত ‘ব্লু অরিজিন’ নামের একটি মহাকাশ প্রকল্পে ১ বিলিয়ন ডলার ব্যয় করেছেন।

গণমাধ্যম সিএনবিসি জানায়, ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটের আগামী প্রজন্মের সেবা দেওয়ার দৌড়ে আমাজন অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যোগ দিয়েছে। আর এ লক্ষ্যে মহাকাশ গবেষণা সংস্থা স্পেসএক্সের কৃত্রিম উপগ্রহ নিয়ে কাজ করা সাবেক একদল কর্মকর্তাদের নিয়োগ দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

স্পেসএক্সের প্রধান এলন মাস্ক গত বছর মহাকাশে দুটি কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠিয়েছেন তার ‘স্টারলিংক’ প্রকল্পের আওতায়। তার এই প্রকল্পে প্রায় সাড়ে চার হাজার কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠানোর লক্ষ্যে নির্ধারণ করা হয়েছে।

এ ধরনের সেবা নিয়ে কাজ করছে লিওস্যাট ও কানাডার টেলেস্যাটের মতো প্রতিষ্ঠান।