ঢাকা ০৮:০৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কাজাকিস্তান বিমান দুর্ঘটনা: নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৫

আন্তর্জাতিক :

বিমান ক্রুসহ ১০০ যাত্রী নিয়ে কাজাকিস্তানের আলমাতি বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়নের পরপরই ভেঙে পড়েছে বেক এয়ারলাইনসের একটি বিমান। এ ঘটনায় প্রাথমিকভাবে নয়জনের মৃত্যুর কথা জানানো হলেও সেই সংখ্যা এখন গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১২ জনে। স্থানীয় সময় শুক্রবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। খবর বিবিসি’র।

অবশ্য দেশটির অভ্যন্তরিন বিষয়ক মন্ত্রী তার বক্তব্য জানিয়েছিলেন ১৫ জনের মৃত্যুর কথা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পাইলটসহ নিহত ১২ জনের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার সকালে কাজাকিস্তানের বাণিজ্যিক রাজধানীর আলমাটির আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়ন করে দেশটির রাষ্ট্রীয় বিমান পরিবহন সংস্থা বেক এয়ারের ফ্লাইট জেড-৯২১০০ বিমানটি। বিমানটি আলমাটি থেকে রাজধানী নুর-সুলতান যাচ্ছিল। তবে উড্ডয়নের কিছুক্ষণ পরই তা ভেঙ্গে পড়ে।

এ সময় বিমানে ৯৫ জন যাত্রী ও পাইলটসহ পাঁচজন বিমান ক্রু ছিলেন। তাদের মধ্যে নিহত ১২ জনের তালিকা পাওয়া গেছে। পাশাপাশি আহত হয়েছেন শিশুসহ অন্তত ৬০ জন। আহতদের হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দেওয়া হচ্ছে।

কাজাকিস্তান বিমান দুর্ঘটনা: নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৫

এদিকে খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় জরুরি উদ্ধারকারী বাহিনীর সদস্যরা। তাদের উদ্ধার অভিযানের একটি ভিডিওতে দেখা যায়, দোতলা দালানের গায়ে আঁছড়ে পড়া বিমানের ধ্বংসস্তূপে উদ্ধার কাজ চালাচ্ছেন তারা। তবে দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে এখনো কিছু জানা যায়নি।

ঘটনাস্থলের কাছে থাকা রয়টার্সের এক রিপোর্টার জানান, দুর্ঘটনার সময় ওই এলাকায় ঘন কুয়াশা ছিল।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ

কাজাকিস্তান বিমান দুর্ঘটনা: নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৫

আপডেট সময় ১১:২৮:৫১ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৭ ডিসেম্বর ২০১৯

আন্তর্জাতিক :

বিমান ক্রুসহ ১০০ যাত্রী নিয়ে কাজাকিস্তানের আলমাতি বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়নের পরপরই ভেঙে পড়েছে বেক এয়ারলাইনসের একটি বিমান। এ ঘটনায় প্রাথমিকভাবে নয়জনের মৃত্যুর কথা জানানো হলেও সেই সংখ্যা এখন গিয়ে দাঁড়িয়েছে ১২ জনে। স্থানীয় সময় শুক্রবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। খবর বিবিসি’র।

অবশ্য দেশটির অভ্যন্তরিন বিষয়ক মন্ত্রী তার বক্তব্য জানিয়েছিলেন ১৫ জনের মৃত্যুর কথা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পাইলটসহ নিহত ১২ জনের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার সকালে কাজাকিস্তানের বাণিজ্যিক রাজধানীর আলমাটির আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়ন করে দেশটির রাষ্ট্রীয় বিমান পরিবহন সংস্থা বেক এয়ারের ফ্লাইট জেড-৯২১০০ বিমানটি। বিমানটি আলমাটি থেকে রাজধানী নুর-সুলতান যাচ্ছিল। তবে উড্ডয়নের কিছুক্ষণ পরই তা ভেঙ্গে পড়ে।

এ সময় বিমানে ৯৫ জন যাত্রী ও পাইলটসহ পাঁচজন বিমান ক্রু ছিলেন। তাদের মধ্যে নিহত ১২ জনের তালিকা পাওয়া গেছে। পাশাপাশি আহত হয়েছেন শিশুসহ অন্তত ৬০ জন। আহতদের হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দেওয়া হচ্ছে।

কাজাকিস্তান বিমান দুর্ঘটনা: নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৫

এদিকে খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় জরুরি উদ্ধারকারী বাহিনীর সদস্যরা। তাদের উদ্ধার অভিযানের একটি ভিডিওতে দেখা যায়, দোতলা দালানের গায়ে আঁছড়ে পড়া বিমানের ধ্বংসস্তূপে উদ্ধার কাজ চালাচ্ছেন তারা। তবে দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে এখনো কিছু জানা যায়নি।

ঘটনাস্থলের কাছে থাকা রয়টার্সের এক রিপোর্টার জানান, দুর্ঘটনার সময় ওই এলাকায় ঘন কুয়াশা ছিল।