ঢাকা ০৮:২৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ৩ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পা দিয়ে লিখে মোহাম্মদ আলীর এইচএসসি পরীক্ষা

জাতীয় ডেস্কঃ
‘মোহাম্মদ আলী’ দুই হাতবিহীন প্রতিবন্ধী এক শিক্ষার্থীর নাম। ডান পা দিয়ে লেখা ও খাওয়ার কাজ করেন তিনি। দু’হাত নেই এমনটা তার কখনো মনে হয়না। এ অবস্থায় অসম্ভবকে সম্ভব করে যাচ্ছেন এ শিক্ষার্থী।
পা দিয়ে লিখে তিনি প্রাথমিক-মাধ্যমিক শিক্ষা শেষ করেছেন। এবার চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার ব্রা আউলিয়া কলেজ কেন্দ্র থেকে ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ থেকে এইচএসসি পরীক্ষা দিচ্ছেন মোহাম্মদ আলী। তিনি চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান কলেজের ছাত্র।
জানা যায়, মোহাম্মদ আলী উপজেলার বড়হাতিয়া ইউনিয়নের হরিদাঘোনা এলাকার আমিন শরীফের সন্তান। জন্মলগ্ন থেকে তিনি প্রতিবন্ধী। তিনি ২০০৯ সালে পিএসসি ও ২০১৫ সালে এসএসসি পাশ করেছেন। পা দিয়ে লিখে এসএসসিতে ‘এ’ মাইনাস পেয়েছেন। ক্রিকেট-ফুটবলও খেলেন তিনি। এমনকি কাঁধে ব্যাট চেপে ধরে ক্রিকেটও খেলেন তিনি।
মোহাম্মদ আলী জানান, তার দু’হাত নেই তাতে কি হয়েছে। মনোবল আছে তার। তিনি মাস্টার্স পর্যন্ত লেখাপড়া করতে চান। উচ্চ শিক্ষিত হতে চান। এ জন্য তিনি সকলের সহযোগিতা চান। তার আশা ভাল একটা চাকুরী করা।
তার কলেজের অধ্যক্ষ মো. মফিজুর রহমান জানান, মোহাম্মদ আলী কলেজে নিয়মিত ক্লাস করতো। কলেজের প্রতিটি অভ্যন্তরীণ পরীক্ষায় সে ভাল ফল করেছে। এইএসসি পরীক্ষায়ও ভাল করবে বলে তিনি জানান।
ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

মুরাদনগর ভয়াবহ আগুন কয়ক কাটি টাকার ক্ষতি 

পা দিয়ে লিখে মোহাম্মদ আলীর এইচএসসি পরীক্ষা

আপডেট সময় ০৩:২৭:১১ অপরাহ্ন, রবিবার, ২ এপ্রিল ২০১৭
জাতীয় ডেস্কঃ
‘মোহাম্মদ আলী’ দুই হাতবিহীন প্রতিবন্ধী এক শিক্ষার্থীর নাম। ডান পা দিয়ে লেখা ও খাওয়ার কাজ করেন তিনি। দু’হাত নেই এমনটা তার কখনো মনে হয়না। এ অবস্থায় অসম্ভবকে সম্ভব করে যাচ্ছেন এ শিক্ষার্থী।
পা দিয়ে লিখে তিনি প্রাথমিক-মাধ্যমিক শিক্ষা শেষ করেছেন। এবার চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার ব্রা আউলিয়া কলেজ কেন্দ্র থেকে ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগ থেকে এইচএসসি পরীক্ষা দিচ্ছেন মোহাম্মদ আলী। তিনি চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান কলেজের ছাত্র।
জানা যায়, মোহাম্মদ আলী উপজেলার বড়হাতিয়া ইউনিয়নের হরিদাঘোনা এলাকার আমিন শরীফের সন্তান। জন্মলগ্ন থেকে তিনি প্রতিবন্ধী। তিনি ২০০৯ সালে পিএসসি ও ২০১৫ সালে এসএসসি পাশ করেছেন। পা দিয়ে লিখে এসএসসিতে ‘এ’ মাইনাস পেয়েছেন। ক্রিকেট-ফুটবলও খেলেন তিনি। এমনকি কাঁধে ব্যাট চেপে ধরে ক্রিকেটও খেলেন তিনি।
মোহাম্মদ আলী জানান, তার দু’হাত নেই তাতে কি হয়েছে। মনোবল আছে তার। তিনি মাস্টার্স পর্যন্ত লেখাপড়া করতে চান। উচ্চ শিক্ষিত হতে চান। এ জন্য তিনি সকলের সহযোগিতা চান। তার আশা ভাল একটা চাকুরী করা।
তার কলেজের অধ্যক্ষ মো. মফিজুর রহমান জানান, মোহাম্মদ আলী কলেজে নিয়মিত ক্লাস করতো। কলেজের প্রতিটি অভ্যন্তরীণ পরীক্ষায় সে ভাল ফল করেছে। এইএসসি পরীক্ষায়ও ভাল করবে বলে তিনি জানান।