ঢাকা ০১:৪১ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মালয়েশিয়ায় দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশি নিহত

অন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

মালয়েশিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য পাহাংয়ের মহাসড়কে একটি গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ছিটকে গিয়ে ড্রেনে পড়ে দুমড়ে-মুচড়ে গেছে। এতে অন্তত দুই বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ছয়জন, যাদের মধ্যে পাঁচজনই বাংলাদেশি।

বুধবার (২৮ মার্চ) বিকেলে পাহাংয়ের রাজধানী কুয়ানতানের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলের মহাসড়কের কেএম১২১.৪ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিশান আরবান মাইক্রোবাসটিযোগে ওই বাংলাদেশিরা কোথাও যাচ্ছিলেন।

বৃহস্পতিবার (২৯ মার্চ) মালয়েশিয়ার বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম জানায়, নিহতদের মধ্যে একজনের নাম ফরহাদ হোসাইন (৩৬), তিনি চুক্তিভিত্তিক শ্রমিক হিসেবে কাজ করছিলেন। আরেকজনের পরিচয় তাৎক্ষণিক নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

আর আহত ছয়জনের মধ্যে একজন দুর্ঘটনাকবলিত গাড়ির চালক কামরুল বাহারিন (৫২), তিনি একটি প্রকৌশল কোম্পানির সুপারভাইজর। আহত ৫ বাংলাদেশির পরিচয়ও তৎক্ষণাৎ জানা যায়নি।

স্থানীয় পুলিশের প্রধান এসিপি জুনদিন মাহমুদ বলেন, চালক তন্দ্রাচ্ছন্ন হয়ে গাড়ি চালাচ্ছিলেন বিধায় মাইক্রোবাসটি ছিটকে রাস্তার বাঁ পাশের ড্রেনে পড়ে যায় বলে মনে করা হচ্ছে।

নিহতদের মরদেহ ও আহতদের নিকটস্থ সুলতান হাজি আহমাদ শাহ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

মালয়েশিয়ায় দুর্ঘটনায় ২ বাংলাদেশি নিহত

আপডেট সময় ০৮:০৬:১০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ মার্চ ২০১৮
অন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

মালয়েশিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য পাহাংয়ের মহাসড়কে একটি গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ছিটকে গিয়ে ড্রেনে পড়ে দুমড়ে-মুচড়ে গেছে। এতে অন্তত দুই বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও ছয়জন, যাদের মধ্যে পাঁচজনই বাংলাদেশি।

বুধবার (২৮ মার্চ) বিকেলে পাহাংয়ের রাজধানী কুয়ানতানের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলের মহাসড়কের কেএম১২১.৪ এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিশান আরবান মাইক্রোবাসটিযোগে ওই বাংলাদেশিরা কোথাও যাচ্ছিলেন।

বৃহস্পতিবার (২৯ মার্চ) মালয়েশিয়ার বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম জানায়, নিহতদের মধ্যে একজনের নাম ফরহাদ হোসাইন (৩৬), তিনি চুক্তিভিত্তিক শ্রমিক হিসেবে কাজ করছিলেন। আরেকজনের পরিচয় তাৎক্ষণিক নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

আর আহত ছয়জনের মধ্যে একজন দুর্ঘটনাকবলিত গাড়ির চালক কামরুল বাহারিন (৫২), তিনি একটি প্রকৌশল কোম্পানির সুপারভাইজর। আহত ৫ বাংলাদেশির পরিচয়ও তৎক্ষণাৎ জানা যায়নি।

স্থানীয় পুলিশের প্রধান এসিপি জুনদিন মাহমুদ বলেন, চালক তন্দ্রাচ্ছন্ন হয়ে গাড়ি চালাচ্ছিলেন বিধায় মাইক্রোবাসটি ছিটকে রাস্তার বাঁ পাশের ড্রেনে পড়ে যায় বলে মনে করা হচ্ছে।

নিহতদের মরদেহ ও আহতদের নিকটস্থ সুলতান হাজি আহমাদ শাহ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।