ঢাকা ০৪:৫৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগরে দুর্ধষ ডাকাতি, ৩ ডাকাত গ্রেফতার

0329

মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

রোজ মঙ্গলবার, ১২ জানুয়ারী ২০১৬ইং(মুরাদনগর বার্তা ডটকম):

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার ছালিয়াকান্দি ইউনিয়নের বোরারচর গ্রামে এক দুর্ধষ ডাকাতি সংগঠিত হয়। ডাকাতরা নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকারসহ প্রায় ২ লাখ টাকার মালামাল হাতিয়ে নেয়। এ দিকে পুলিশ ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাতকে ছোড়াসহ আটক করে জেলহাজতে পাঠিয়েছে।

জানা যায়, মুরাদনগর-ইলিয়টগঞ্জ সড়কের বোরারচর গ্রামের হানিফ ভুইয়ার বাড়িতে সোমবার রাতে ৮/১০ জনের একটি মুখোশধারী দুর্ধষ ডাকাত দল ঘরের দরজা ভেঙ্গে ভিতরে ঢুকে রামদা ও ছোড়ার ভয় দেখিয়ে তার মেয়ে ফাহিমা আক্তারকে জিম্মি করে রাখে। তখন হানিফ ভুইয়ার স্ত্রী ফিরোজা বেগমকে দিয়ে কৌশলে পুত্রবধু শাহিদা আক্তারের ঘরের দরজা খুলে। এ সময় উভয় ঘর থেকে নগদ ২২ হাজার টাকা, সাড়ে ৩ ভড়ি স্বর্ণালংকার, ২টি মোবাইল ফোন, ২টি টর্সলাইট ও প্রয়োজনীয় কাপড়-চোপড়সহ প্রায় ২ লাখ টাকার মালামাল লুটে নেয়। খবর পেয়ে পুলিশের এসআই আনোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ

ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও প্রকৃত ডাকাতির ঘটনাটি ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা চলছে বলে জানা গেছে।

অপর দিকে মুরাদনগর থানা পুলিশ পান্নারপুল-বাখরাবাদ সড়কের সাতমোড়া এলাকা থেকে সোমবার রাতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে রামদা ও ছোড়াসহ ৩ ডাকাতকে গ্রেফতার করে।
আটককৃতরা হলেন- সাতমোড়া গ্রামের মৃত বাচ্চু মিয়ার ছেলে হৃদয় মিয়া (২১), বোরারচর গ্রামের সাহাজ উদ্দিনের ছেলে অহিদুল আলম (৩০) ও একই গ্রামের মৃত আমির হোসেনের ছেলে কবির হোসেন (২৭)।

আটককৃতদের মঙ্গলবার বিকেলে কুমিল্লা জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে তাদের গ্রেফতার নিয়ে এলাকায় বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। কারণ পুলিশ সাতমোড়া এলাকা থেকে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদেরকে গ্রেফতারের কথা বলা হলেও প্রকৃতপক্ষে অহিদুল আলমকে নিজবাড়ি ও কবির হোসেনকে দারোরা থেকে আটক করে।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান ৩ ডাকাতকে গ্রেফতার করার সত্যতা শিকার করে জানান, বোরারচর গ্রামের ডাকাতির ঘটনাটি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

মুরাদনগর বাবুটিপাড়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতির ইন্তেকাল

মুরাদনগরে দুর্ধষ ডাকাতি, ৩ ডাকাত গ্রেফতার

আপডেট সময় ০৪:২৬:৫৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১২ জানুয়ারী ২০১৬

0329

মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

রোজ মঙ্গলবার, ১২ জানুয়ারী ২০১৬ইং(মুরাদনগর বার্তা ডটকম):

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার ছালিয়াকান্দি ইউনিয়নের বোরারচর গ্রামে এক দুর্ধষ ডাকাতি সংগঠিত হয়। ডাকাতরা নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকারসহ প্রায় ২ লাখ টাকার মালামাল হাতিয়ে নেয়। এ দিকে পুলিশ ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাতকে ছোড়াসহ আটক করে জেলহাজতে পাঠিয়েছে।

জানা যায়, মুরাদনগর-ইলিয়টগঞ্জ সড়কের বোরারচর গ্রামের হানিফ ভুইয়ার বাড়িতে সোমবার রাতে ৮/১০ জনের একটি মুখোশধারী দুর্ধষ ডাকাত দল ঘরের দরজা ভেঙ্গে ভিতরে ঢুকে রামদা ও ছোড়ার ভয় দেখিয়ে তার মেয়ে ফাহিমা আক্তারকে জিম্মি করে রাখে। তখন হানিফ ভুইয়ার স্ত্রী ফিরোজা বেগমকে দিয়ে কৌশলে পুত্রবধু শাহিদা আক্তারের ঘরের দরজা খুলে। এ সময় উভয় ঘর থেকে নগদ ২২ হাজার টাকা, সাড়ে ৩ ভড়ি স্বর্ণালংকার, ২টি মোবাইল ফোন, ২টি টর্সলাইট ও প্রয়োজনীয় কাপড়-চোপড়সহ প্রায় ২ লাখ টাকার মালামাল লুটে নেয়। খবর পেয়ে পুলিশের এসআই আনোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে একদল পুলিশ

ঘটনাস্থল পরিদর্শন করলেও প্রকৃত ডাকাতির ঘটনাটি ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা চলছে বলে জানা গেছে।

অপর দিকে মুরাদনগর থানা পুলিশ পান্নারপুল-বাখরাবাদ সড়কের সাতমোড়া এলাকা থেকে সোমবার রাতে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে রামদা ও ছোড়াসহ ৩ ডাকাতকে গ্রেফতার করে।
আটককৃতরা হলেন- সাতমোড়া গ্রামের মৃত বাচ্চু মিয়ার ছেলে হৃদয় মিয়া (২১), বোরারচর গ্রামের সাহাজ উদ্দিনের ছেলে অহিদুল আলম (৩০) ও একই গ্রামের মৃত আমির হোসেনের ছেলে কবির হোসেন (২৭)।

আটককৃতদের মঙ্গলবার বিকেলে কুমিল্লা জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে তাদের গ্রেফতার নিয়ে এলাকায় বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। কারণ পুলিশ সাতমোড়া এলাকা থেকে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদেরকে গ্রেফতারের কথা বলা হলেও প্রকৃতপক্ষে অহিদুল আলমকে নিজবাড়ি ও কবির হোসেনকে দারোরা থেকে আটক করে।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান ৩ ডাকাতকে গ্রেফতার করার সত্যতা শিকার করে জানান, বোরারচর গ্রামের ডাকাতির ঘটনাটি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।