ঢাকা ০৩:৫৭ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগরে পুলিশের ভয় দেখিয়ে গৃহবধূকে ধর্ষন করলো জনপ্রতিনিধি

অাবুল খায়ের, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

রোজ শনিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৫ ইং (মুরাদনগর বার্তা ডটকম):
কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার পাহাড়পুর ইউনয়নের উৎরাইন গ্রামে পুলিশের ভয় দেখিয়ে গৃহবধূকে জোরপুর্বক ধর্ষন করলো এক জনপ্রতিনিধি। টানা ২দিন আটকে রেখে ধর্ষনের অভিযোগে উৎরাইন গ্রামের ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাবকে শুক্রবার গভীর রাতে আটক করেছে পুলিশ।

এ ঘটনায় ধর্ষিতা বাদী হয়ে শনিবার রাতে ২জনকে আসামী করে মুরাদনগর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

অভিযোগ সয়ত্রে জানা যায়, উপজেলার উৎরাইন গ্রামের আব্দুল জলিল ভুইয়ার মেয়ে সোহাগী আক্তারের স্বামী সাগর হোসেনকে গত ১৪ নভেম্বর বিষপানে আত্মহত্যা করায় স্ত্রী সোহাগী ও তার পরিবারদের বিরুদ্ধে মামলা হওয়া পুলিশের ভয় দেখিয়ে একই গ্রামের ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাব তাকে পাশ্ববর্তী গ্রামের আব্দুল আলিমের বাড়ীতে আটকে রেখে টানা ২দিন জোরপুর্বক ধর্ষন করে। পরে শুক্র সন্ধ্যায় ওই গৃহবধূ কৌশলে পালিয়ে এসে থানায় অভিযোগ দায়ের করলে পুলিশ ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাবকে গ্রেফতার করে।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) ওসি মিজানরি রহমান জানান, ধষনের অভিযোগে দু’জনকে আসামি করে সোহাগী আটককৃত নারী ও শিশু নির্যাতন দমন (সংশোধনী) আইনে ২০০৩ এর ৯(১) দারায়বার একটি মামলা করেছে। আটককৃত সোহাগী ও ধর্ষক ইউপি সদস্য আব্দুল জলিলকে শনিবার দুপুরে কুমিল্লা জেল হাজতে প্ররন করা হয়েছে।

ট্যাগস
জনপ্রিয় সংবাদ

মুরাদনগর বাবুটিপাড়া ইউনিয়ন বিএনপি’র সভাপতির ইন্তেকাল

মুরাদনগরে পুলিশের ভয় দেখিয়ে গৃহবধূকে ধর্ষন করলো জনপ্রতিনিধি

আপডেট সময় ০১:৪৮:২৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৫

অাবুল খায়ের, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

রোজ শনিবার, ২১ নভেম্বর ২০১৫ ইং (মুরাদনগর বার্তা ডটকম):
কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার পাহাড়পুর ইউনয়নের উৎরাইন গ্রামে পুলিশের ভয় দেখিয়ে গৃহবধূকে জোরপুর্বক ধর্ষন করলো এক জনপ্রতিনিধি। টানা ২দিন আটকে রেখে ধর্ষনের অভিযোগে উৎরাইন গ্রামের ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাবকে শুক্রবার গভীর রাতে আটক করেছে পুলিশ।

এ ঘটনায় ধর্ষিতা বাদী হয়ে শনিবার রাতে ২জনকে আসামী করে মুরাদনগর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

অভিযোগ সয়ত্রে জানা যায়, উপজেলার উৎরাইন গ্রামের আব্দুল জলিল ভুইয়ার মেয়ে সোহাগী আক্তারের স্বামী সাগর হোসেনকে গত ১৪ নভেম্বর বিষপানে আত্মহত্যা করায় স্ত্রী সোহাগী ও তার পরিবারদের বিরুদ্ধে মামলা হওয়া পুলিশের ভয় দেখিয়ে একই গ্রামের ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাব তাকে পাশ্ববর্তী গ্রামের আব্দুল আলিমের বাড়ীতে আটকে রেখে টানা ২দিন জোরপুর্বক ধর্ষন করে। পরে শুক্র সন্ধ্যায় ওই গৃহবধূ কৌশলে পালিয়ে এসে থানায় অভিযোগ দায়ের করলে পুলিশ ইউপি সদস্য আব্দুল ওহাবকে গ্রেফতার করে।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) ওসি মিজানরি রহমান জানান, ধষনের অভিযোগে দু’জনকে আসামি করে সোহাগী আটককৃত নারী ও শিশু নির্যাতন দমন (সংশোধনী) আইনে ২০০৩ এর ৯(১) দারায়বার একটি মামলা করেছে। আটককৃত সোহাগী ও ধর্ষক ইউপি সদস্য আব্দুল জলিলকে শনিবার দুপুরে কুমিল্লা জেল হাজতে প্ররন করা হয়েছে।