ঢাকা ১১:০৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগরে বিপুল পরিমান অবৈধ গ্যাসের পাইপ উদ্ধার

মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলায় বিপুল পরিমান অবৈধ গ্যাসের পাইপ উদ্ধার করেছে বাখরাবাদ গ্যাস কৃতিপক্ষ।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজেলার ধামঘর ইউনিয়নের লক্ষীপুর গ্রামে অবৈধ গ্যাস লাইন নির্মান কালে বাখরাবাদ গ্যাস কতৃপক্ষের সহযোগিতায় এসব পাইপ উদ্ধার করে মুরাদনগর থানা পুলিশ।

জানা যায়, মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার মুগসাইর গ্রাম থেকে লক্ষীপুর গ্রামে প্রায় ৮ হাজার ফুটের একটি অবৈধ গ্যাস লাইনের নির্মান কাজ শুরু করে উপজেলার সিদ্ধেশ্বরী গ্রামের আনিছ। গোপন সূত্রে এমন খবর পেয়ে বাখরাবাদ গ্যাস ডিস্টিউিশন কোম্পানীর দেবিদ্বার জোনাল অফিসের সাব-সেকশনাল কর্মকর্তা বাপ্পি শাহরিয়ার ও প্রকোশলী অতুল কুমার নাগের নেতৃত্বে একদল কর্মকর্তা ঘনার স্থলে যায়। পরে ঐ অবৈধ পাইপ লাইন সনাক্ত করে মুরাদনগর থানা পুলিশকে খবর দেন। সন্ধ্যায় থানার এসআই আনোয়ার হোসেনের নেতৃত্ব একদল পুলিশ গিয়ে বিপুল পরিমান গ্যাস পাইপ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

তবে পুলিশের উপস্থিতি টেরপেয়ে অবৈধ লাইন সংযোগকারী আনিছ পালিয়ে জায়।

স্থানীয়রা জানায়, লক্ষীপুর গ্রামের সাধারন মানুষদের বৈধভাবে গ্যাস সংযোগ দেওয়ার নাম করে আনিছ প্রতি গ্রাহক থেকে বিপুল পরিমান টাকা হাতিয়ে নেয়। এ টাকা স্থানীয়রা ফিরত পেতে পুলিশের সহযোগিতা কামনা করেন।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, কতৃপক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে লক্ষীপুর গ্রাম থেকে বিপুল পরিমান গ্যাসের পাইপ উদ্ধার করা হয়েছে। অবৈধ লাইন নির্মানকারী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ট্যাগস

মুরাদনগরে বিপুল পরিমান অবৈধ গ্যাসের পাইপ উদ্ধার

আপডেট সময় ০৭:২৯:১৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২ অগাস্ট ২০১৬
মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলায় বিপুল পরিমান অবৈধ গ্যাসের পাইপ উদ্ধার করেছে বাখরাবাদ গ্যাস কৃতিপক্ষ।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজেলার ধামঘর ইউনিয়নের লক্ষীপুর গ্রামে অবৈধ গ্যাস লাইন নির্মান কালে বাখরাবাদ গ্যাস কতৃপক্ষের সহযোগিতায় এসব পাইপ উদ্ধার করে মুরাদনগর থানা পুলিশ।

জানা যায়, মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার মুগসাইর গ্রাম থেকে লক্ষীপুর গ্রামে প্রায় ৮ হাজার ফুটের একটি অবৈধ গ্যাস লাইনের নির্মান কাজ শুরু করে উপজেলার সিদ্ধেশ্বরী গ্রামের আনিছ। গোপন সূত্রে এমন খবর পেয়ে বাখরাবাদ গ্যাস ডিস্টিউিশন কোম্পানীর দেবিদ্বার জোনাল অফিসের সাব-সেকশনাল কর্মকর্তা বাপ্পি শাহরিয়ার ও প্রকোশলী অতুল কুমার নাগের নেতৃত্বে একদল কর্মকর্তা ঘনার স্থলে যায়। পরে ঐ অবৈধ পাইপ লাইন সনাক্ত করে মুরাদনগর থানা পুলিশকে খবর দেন। সন্ধ্যায় থানার এসআই আনোয়ার হোসেনের নেতৃত্ব একদল পুলিশ গিয়ে বিপুল পরিমান গ্যাস পাইপ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

তবে পুলিশের উপস্থিতি টেরপেয়ে অবৈধ লাইন সংযোগকারী আনিছ পালিয়ে জায়।

স্থানীয়রা জানায়, লক্ষীপুর গ্রামের সাধারন মানুষদের বৈধভাবে গ্যাস সংযোগ দেওয়ার নাম করে আনিছ প্রতি গ্রাহক থেকে বিপুল পরিমান টাকা হাতিয়ে নেয়। এ টাকা স্থানীয়রা ফিরত পেতে পুলিশের সহযোগিতা কামনা করেন।

এ বিষয়ে মুরাদনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, কতৃপক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে লক্ষীপুর গ্রাম থেকে বিপুল পরিমান গ্যাসের পাইপ উদ্ধার করা হয়েছে। অবৈধ লাইন নির্মানকারী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।