ঢাকা ১০:৪৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগরে মারামারির ঘটনায় সাবেক এমপির মামাতো ভাই গ্রেফতার

মাহবুব আলম আরিফ:

কুমিল্লার মুরাদনগরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মারামারির ঘটনায় সাবেক এমপির মামাতো ভাইকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার সকালে উপজেলার বড়ইয়াকুড়ি গ্রামের নিজ বাড়ী থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত সৈয়দ হাসান মীর কুমিল্লা-৩ মুরাদনগর আসনের সাবেক এমপি কাজী শাহ্ মোফাজ্জল হোসেন কায়কোবাদের মামাতো ভাই ও উপজেলার জাহাপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সৈয়দ তৌফিক আহমেদ মীরের ছেলে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ২০ জানুয়ারী উপজেলার বড়ইয়াকুড়ি গ্রামের রুসমত আলী সরকারের ছেলে জালাল সরকার তার নিজ বাড়ীতে দালান নির্মাণের কাজ শুরু করে। সে সময় পূর্বের জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে হাসান মীর নির্মাণ কাজে বাধা প্রদান করে। গত ২৭ জানুয়ারী বাধা উপেক্ষা করে দালান নির্মাণের কাজ করতে গেলে হাসান মীর ও তার লোকজন জলাল সরকারকে বেধড়ক মারধর করে। এ সময় জালাল সরকার গুরুতর আহত হলে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রথমিক চিকিৎসা শেষে ভর্তি করা হয়। পরে শুক্রবার (৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে জালাল সরকার বাদী হয়ে মুরাদনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ একেএম মনজুর আলম বলেন, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মারামারির ঘটনায় জালালের অভিযোগের ভিত্তিতে হাসান মীরকে গ্রেফতার পূর্বক শুক্রবার দুপুরে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

শিক্ষার্থীদের উপর হামলার প্রতিবাদে মুরাদনগরে বিক্ষোভ ও সড়ক অবরোধ

মুরাদনগরে মারামারির ঘটনায় সাবেক এমপির মামাতো ভাই গ্রেফতার

আপডেট সময় ০৩:৫৭:০০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২০

মাহবুব আলম আরিফ:

কুমিল্লার মুরাদনগরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মারামারির ঘটনায় সাবেক এমপির মামাতো ভাইকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার সকালে উপজেলার বড়ইয়াকুড়ি গ্রামের নিজ বাড়ী থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত সৈয়দ হাসান মীর কুমিল্লা-৩ মুরাদনগর আসনের সাবেক এমপি কাজী শাহ্ মোফাজ্জল হোসেন কায়কোবাদের মামাতো ভাই ও উপজেলার জাহাপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সৈয়দ তৌফিক আহমেদ মীরের ছেলে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ২০ জানুয়ারী উপজেলার বড়ইয়াকুড়ি গ্রামের রুসমত আলী সরকারের ছেলে জালাল সরকার তার নিজ বাড়ীতে দালান নির্মাণের কাজ শুরু করে। সে সময় পূর্বের জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে হাসান মীর নির্মাণ কাজে বাধা প্রদান করে। গত ২৭ জানুয়ারী বাধা উপেক্ষা করে দালান নির্মাণের কাজ করতে গেলে হাসান মীর ও তার লোকজন জলাল সরকারকে বেধড়ক মারধর করে। এ সময় জালাল সরকার গুরুতর আহত হলে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে মুরাদনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রথমিক চিকিৎসা শেষে ভর্তি করা হয়। পরে শুক্রবার (৭ ফেব্রুয়ারি) সকালে জালাল সরকার বাদী হয়ে মুরাদনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ একেএম মনজুর আলম বলেন, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মারামারির ঘটনায় জালালের অভিযোগের ভিত্তিতে হাসান মীরকে গ্রেফতার পূর্বক শুক্রবার দুপুরে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।