ঢাকা ০১:১৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুরাদনগর নবীপুর পশ্চিম ইউপির রহিমপুর ওয়ার্ডের উপ-নির্বাচনে জমে ওঠেছে নির্বাচনী প্রচারণা

মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

আগামী ২৮ ডিসেম্বর কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার নবীপুর পশ্চিম ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের সাধারণ আসনে উপ-নির্বাচনে জমে ওঠেছে প্রচারণা। এ ওয়ার্ডে এক হাজার ৪৭০ জন ভোটারের প্রতিনিধি হতে এ উপ-নির্বাচনে এক জন নারিসহ লড়ছেন ৬ জন। অপর দিকে একটি প্রভাবশালী মহল নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর জন্য হুমকি-ধমকিসহ বিভিন্ন ভাবে চাপ সৃষ্টি করছে বলে অভিযোগ ওঠেছে।

নির্বাচনের দিন ভোট কেটে নেওয়ারর অতঙ্কে রয়েছে সাধারন ভোটার ও প্রার্থীরা।
জানা যায়, এ উপ-নির্বাচনে জহিরুল ইসলাম (মোরগ মার্কা), আবু তাহের ধনু মিয়া (ফুটবল), বিলকিছ আক্তার (টিউবওয়েল), খোকন মিয়া (ঘুড়ি), আব্দুল মোমেন মিযা (আপেল) ও বজলু মিযা (তালা) নিয়ে নির্বাচন করছেন।
সরেজমিনে দিয়ে দেখা যায়, এ নির্বাচনে জহিরুল ইসলামের সাথে আবু তাহের ধনু মিয়ার মধ্যে লড়াই হবে।

নাম প্রকাশে অইচ্ছুক এক প্রার্থী জানায় কেহ কেহ এ নিবার্চনিয়ে অনেক ছক আকছে। ভোট কেটে ও কিছু প্রার্থীকে বিজয়ী করার লক্ষ্যে কিছু সন্ত্রাসীদের ও ভাড়া করছে কিছু প্রার্থীরা। সুষ্ঠ নির্বাচনের লক্ষ্যে কতৃপক্ষ যে প্রয়োজনিয় ব্যবস্থা গ্রহন করে তা এখন সাধারন ভোটারদেও জোড় দাবী।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা প্রলয় কুমার সাহা জানান, নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ ভাবে সম্পন্ন করার জন্য যাবতীয় প্রস্তুতি হাতে নেয়া হয়েছে। এ জন্য তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

মুরাদনগর নবীপুর পশ্চিম ইউপির রহিমপুর ওয়ার্ডের উপ-নির্বাচনে জমে ওঠেছে নির্বাচনী প্রচারণা

আপডেট সময় ০৮:৫৯:২০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭
মুরাদনগর বার্তা ডেস্কঃ

আগামী ২৮ ডিসেম্বর কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলার নবীপুর পশ্চিম ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের সাধারণ আসনে উপ-নির্বাচনে জমে ওঠেছে প্রচারণা। এ ওয়ার্ডে এক হাজার ৪৭০ জন ভোটারের প্রতিনিধি হতে এ উপ-নির্বাচনে এক জন নারিসহ লড়ছেন ৬ জন। অপর দিকে একটি প্রভাবশালী মহল নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর জন্য হুমকি-ধমকিসহ বিভিন্ন ভাবে চাপ সৃষ্টি করছে বলে অভিযোগ ওঠেছে।

নির্বাচনের দিন ভোট কেটে নেওয়ারর অতঙ্কে রয়েছে সাধারন ভোটার ও প্রার্থীরা।
জানা যায়, এ উপ-নির্বাচনে জহিরুল ইসলাম (মোরগ মার্কা), আবু তাহের ধনু মিয়া (ফুটবল), বিলকিছ আক্তার (টিউবওয়েল), খোকন মিয়া (ঘুড়ি), আব্দুল মোমেন মিযা (আপেল) ও বজলু মিযা (তালা) নিয়ে নির্বাচন করছেন।
সরেজমিনে দিয়ে দেখা যায়, এ নির্বাচনে জহিরুল ইসলামের সাথে আবু তাহের ধনু মিয়ার মধ্যে লড়াই হবে।

নাম প্রকাশে অইচ্ছুক এক প্রার্থী জানায় কেহ কেহ এ নিবার্চনিয়ে অনেক ছক আকছে। ভোট কেটে ও কিছু প্রার্থীকে বিজয়ী করার লক্ষ্যে কিছু সন্ত্রাসীদের ও ভাড়া করছে কিছু প্রার্থীরা। সুষ্ঠ নির্বাচনের লক্ষ্যে কতৃপক্ষ যে প্রয়োজনিয় ব্যবস্থা গ্রহন করে তা এখন সাধারন ভোটারদেও জোড় দাবী।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা প্রলয় কুমার সাহা জানান, নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ ভাবে সম্পন্ন করার জন্য যাবতীয় প্রস্তুতি হাতে নেয়া হয়েছে। এ জন্য তিনি সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।