ঢাকা ১২:৩২ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রায়ের কপি পাওয়া যাবে কাল : বৃহস্পতিবার আপিল

জাতীয় ডেস্কঃ

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল- বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দেয়া জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায়ের সার্টিফাইড কপি পাওয়া যাবে আগামীকাল বুধবার। এর পরদিন আগামী বৃহস্পতিবার উচ্চ আদালতে আপিল করা হবে বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া।

মঙ্গলবার দুপুরে পুরনো ঢাকান নাজিমউদ্দিন রোডের কারাফটকে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এই তথ্য জানান। তিনি বলেন, রায়ের সার্টিফাইড কপি আগামীকাল বুধবার পাওয়া যাবে বলে আদালত থেকে জানতে পেরেছি। আমরা যদি কাল রায়ের কপি পাই, তাহলে পরের দিন অর্থাৎ বৃহস্পতিবার আপিল আবেদন করতে পারবো।

সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, আমরা উকালতনামায় বেগম জিয়ার স্বাক্ষর নিতে এসেছিলাম। কারণ আমরা শুনেছি তার বিরুদ্ধে প্রোডাকশন অ্যারেস্ট জারি হয়েছে। তবে কারা কর্তৃপক্ষ জানালো, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে কোনো প্রোডাকশন ওয়ারেন্ট আসেনি। তাই ওকালতনামা জেল সুপারের কাছে রেখে এসেছি।

তিনি বলেন, আপিল আবেদনের পরে বেগম জিয়ার বিরুদ্ধে যদি প্রোডাকশন অ্যারেস্ট জারি হয়, তাহলে তা প্রত্যাহারের আবেদন জানানো হবে।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

রায়ের কপি পাওয়া যাবে কাল : বৃহস্পতিবার আপিল

আপডেট সময় ০১:২২:১২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮
জাতীয় ডেস্কঃ

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল- বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দেয়া জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায়ের সার্টিফাইড কপি পাওয়া যাবে আগামীকাল বুধবার। এর পরদিন আগামী বৃহস্পতিবার উচ্চ আদালতে আপিল করা হবে বলে জানিয়েছেন তার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া।

মঙ্গলবার দুপুরে পুরনো ঢাকান নাজিমউদ্দিন রোডের কারাফটকে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এই তথ্য জানান। তিনি বলেন, রায়ের সার্টিফাইড কপি আগামীকাল বুধবার পাওয়া যাবে বলে আদালত থেকে জানতে পেরেছি। আমরা যদি কাল রায়ের কপি পাই, তাহলে পরের দিন অর্থাৎ বৃহস্পতিবার আপিল আবেদন করতে পারবো।

সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, আমরা উকালতনামায় বেগম জিয়ার স্বাক্ষর নিতে এসেছিলাম। কারণ আমরা শুনেছি তার বিরুদ্ধে প্রোডাকশন অ্যারেস্ট জারি হয়েছে। তবে কারা কর্তৃপক্ষ জানালো, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে কোনো প্রোডাকশন ওয়ারেন্ট আসেনি। তাই ওকালতনামা জেল সুপারের কাছে রেখে এসেছি।

তিনি বলেন, আপিল আবেদনের পরে বেগম জিয়ার বিরুদ্ধে যদি প্রোডাকশন অ্যারেস্ট জারি হয়, তাহলে তা প্রত্যাহারের আবেদন জানানো হবে।