ঢাকা ১০:১৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১২ জুন ২০২৪, ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সন্ত্রাসী হামলায় নিহত মুরাদনগরের মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার জাহাঙ্গীর আলমের রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন

মো: নাজিম উদ্দিনঃ

ঢাকার যাত্রাবাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলায় নিহত কুমিল্লা মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার এবং সেনাবাহিনীর অবঃ সার্জেন্ট মুক্তিযোদ্ধা ও জাহাপুর ইউনিয়নের পায়ব গ্রামের মৃত আবদুস সোবহানের ছেলে জাহাঙ্গীর আলমের (৬৬) দাফন রাষ্টীয় মর্যাদায় সম্পন্ন হয়েছে।

শুক্রবার বাদ জুম্মা উপজেলার পায়ব হাজী আবদুল গণি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে জানাযা শেষে উপজেলা প্রশাসন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ও পুলিশ বাহিনী নিহত মুক্তিযোদ্ধাকে রাষ্টীয় সম্মাননা প্রদান করেন। জানাযা শেষে পায়ব গ্রামের নিহতের পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

মুক্তিযোদ্ধার জানাযায় মুরাদনগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) রাশেদা আক্তার, কুমিল্লা ক্যান্টনমেন্টের লেফটেনেন্ট মো: তানভীর, মুরাদনগর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হারুন অর রশিদ, যুদ্ধকালীন কমান্ডার গিয়াস উদ্দিন, সহকারী পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা সফিকুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান একেএম সফিকুল ইসলাম সহ এলাকার গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত থেকে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানকে শেষ বিদায় জানান।

উল্লেখ্য মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাইয়ে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের বিরুদ্ধে সোচ্চার মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার ও সেনা বাহিনীর (অবঃ) সার্জেন্ট জাহাঙ্গীর আলম মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাই কার্যক্রমে অংশ নেয়ার লক্ষ্যে বৃহস্পতিবার ভোরে ঢাকার বাসা থেকে মুরাদনগরে আসার পথে যাত্রাবাড়ী এলাকার ধলপুরে দুর্বৃত্তরা তাকে কুপিয়ে হত্যা করে এবং তার সাথে থাকা ভূয়া মুক্তিযোদ্ধাদের তথ্য সংবলিত ফাইলটি নিয়ে যায়।

ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

সন্ত্রাসী হামলায় নিহত মুরাদনগরের মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার জাহাঙ্গীর আলমের রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন সম্পন্ন

আপডেট সময় ০২:৫১:১৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২ জুন ২০১৭
মো: নাজিম উদ্দিনঃ

ঢাকার যাত্রাবাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলায় নিহত কুমিল্লা মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ডেপুটি কমান্ডার এবং সেনাবাহিনীর অবঃ সার্জেন্ট মুক্তিযোদ্ধা ও জাহাপুর ইউনিয়নের পায়ব গ্রামের মৃত আবদুস সোবহানের ছেলে জাহাঙ্গীর আলমের (৬৬) দাফন রাষ্টীয় মর্যাদায় সম্পন্ন হয়েছে।

শুক্রবার বাদ জুম্মা উপজেলার পায়ব হাজী আবদুল গণি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে জানাযা শেষে উপজেলা প্রশাসন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ও পুলিশ বাহিনী নিহত মুক্তিযোদ্ধাকে রাষ্টীয় সম্মাননা প্রদান করেন। জানাযা শেষে পায়ব গ্রামের নিহতের পারিবারিক কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।

মুক্তিযোদ্ধার জানাযায় মুরাদনগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) রাশেদা আক্তার, কুমিল্লা ক্যান্টনমেন্টের লেফটেনেন্ট মো: তানভীর, মুরাদনগর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হারুন অর রশিদ, যুদ্ধকালীন কমান্ডার গিয়াস উদ্দিন, সহকারী পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা সফিকুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান একেএম সফিকুল ইসলাম সহ এলাকার গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ উপস্থিত থেকে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানকে শেষ বিদায় জানান।

উল্লেখ্য মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাইয়ে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের বিরুদ্ধে সোচ্চার মুরাদনগর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা ডেপুটি কমান্ডার ও সেনা বাহিনীর (অবঃ) সার্জেন্ট জাহাঙ্গীর আলম মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাই কার্যক্রমে অংশ নেয়ার লক্ষ্যে বৃহস্পতিবার ভোরে ঢাকার বাসা থেকে মুরাদনগরে আসার পথে যাত্রাবাড়ী এলাকার ধলপুরে দুর্বৃত্তরা তাকে কুপিয়ে হত্যা করে এবং তার সাথে থাকা ভূয়া মুক্তিযোদ্ধাদের তথ্য সংবলিত ফাইলটি নিয়ে যায়।