ঢাকা ১০:২৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ৫ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

১৫ই আগস্ট জাতীয় শোক দিবস সকল ধর্ম বর্ন নির্বিশেষে একত্রিত হয়ে পালন করা উচিৎ—ইঞ্জিনিয়ার মোসলেহ্ উদ্দিন

মো.আবু রায়হান চৌধুরী, হোমনা (কুমিল্লা) থেকেঃ
কুমিল্লার হোমনা উপজেলার ৩নং দুলালপুর ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড (ঝগড়ারচর) আওয়ামীলীগের আয়োজনে রক্তাক্ত ১৫ই আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪২ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী পালন উপলক্ষে শোক সভা, দোয়া মাহফিল ও তবারক বিতরণ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ইঞ্জিনিয়ার এ.কে.এম  মোসলেহ্ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ১৫ই আগস্ট হচ্ছে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস।
আর তাই এই দিবসটি বাংলার আপামর জনসাধারণ সকল ধর্ম বর্ন নির্বিশেষে দল ও জাতীর বেধা বেদ ভুলে গিয়ে একত্রিত হয়ে পালন করা উচিৎ, কারন বঙ্গবন্ধু এই দেশের জন্য যে অবদান রেখে গেছেন তা কোন দিন ভুলার নয়,তার কাছে সমগ্র বাংলাদেশের মানুষ ঋীনি। আর তিনি যদি এদেশের মাটিতে জন্মগ্রহন না করতেন তা হলে এই দেশ কোন দিন পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীদের হাত হতে মুক্তি লাভ করতে পারতো না, তার কারনেই আজ এই দেশ স্বাধীনতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। স্বাধীনতা যুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর ডাকে সারা দিয়ে তখন এ দেশের সর্বস্তরের আপামর জনতা মুক্তির সংগ্রামে ঝাপিয়ে পড়েন। নয় মাস রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ত্রিশ লক্ষ শহিদের রক্ত ও দুই লক্ষ মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে অর্জিত হয় স্বাধীনতা। এসময় তিনি সমগ্র গ্রামবাসীকে কাদে কাদ রেখে এক সাথে আওয়ামীলীগের পক্ষে কাজ করার আহ্বান জানান।
গত মঙ্গলবার বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,ঢাকা মহানগর উত্তর এর সহ-সভাপতি মো. ওমর ফারুক এর সভাপতিত্বে এবং মো. আসাদুজ্জামান মাষ্টার (বি.এসসি.বিএড) ও মো. মহিউদ্দিন আহমেদ, প্রচার সম্পাদক হোমনা উপজেলা যুবলীগ এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠিত শোক সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ,প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট মো.নজরুল ইসলাম সরকার,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি সৈয়দ মো.ইসমাইল হোসেন, বর্তমান সহ-সভাপতি খন্দকার শাহ্ আলম,ফজলুল হক মোল্লা, বিশিষ্ট দানবীর ও সমাজ সেবক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রশিদ, হোমনা পৌর আওয়ামীলীগ সভাপতি ও কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামীলীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যান সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বাবুল, কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ও হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিউদ্দিন খন্দকার,সাধারণ সম্পাদক মো. মোয়াজ্জেম হোসেন মোসলেম,বি আর ডি বি চেয়ারম্যান মো. মেজবাহ্ উদ্দিন সরকার, কুমিল্লা উত্তর জেলার বঙ্গবন্ধু জাতীয় যুব পরিষদের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান মো. খোরশেদ আলম, হোমনা উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মো. রফিকুল ইসলাম, বীর মু্িক্তযোদ্ধা মোসলেম উদ্দিন ভূইয়া, সহ-সভাপতি ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ,বীর মু্িক্তযোদ্ধা আঃ রউফ মোল্লা, বীর মু্িক্তযোদ্ধা শামসুল হক মোল্লা সদস্য ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সৈয়দ মো. মোর্শেদ,বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহন মিয়া,কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ,মো. মনির হোসেন,সদস্য ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, মো. নুরুল হক,সাবেক ইউপি সদস্য ও সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ, মো. শাহাব উদ্দিন, সাবেক ইউপি সদস্য ও সাধারণ সম্পাদক ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ, মো. মনিরুজ্জামান (মনির), সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড যুরলীগ, মো. মোক্তার হোসেন, সাবেক ইউপি সদস্য ও বিশিষ্ট আওয়ামীলীগ নেতা, মো. গিয়াস উদ্দিন ও মো. খোর্শিদ মিয়া বিশিষ্ট আওয়ামীলীগ নেতা প্রমুখ সহ সকল গ্রামবাসী উপস্থিত ছিলেন।
ট্যাগস
আপলোডকারীর তথ্য

মুরাদনগর ভয়াবহ আগুন কয়ক কাটি টাকার ক্ষতি 

১৫ই আগস্ট জাতীয় শোক দিবস সকল ধর্ম বর্ন নির্বিশেষে একত্রিত হয়ে পালন করা উচিৎ—ইঞ্জিনিয়ার মোসলেহ্ উদ্দিন

আপডেট সময় ০১:২৮:২৭ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৭
মো.আবু রায়হান চৌধুরী, হোমনা (কুমিল্লা) থেকেঃ
কুমিল্লার হোমনা উপজেলার ৩নং দুলালপুর ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড (ঝগড়ারচর) আওয়ামীলীগের আয়োজনে রক্তাক্ত ১৫ই আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪২ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী পালন উপলক্ষে শোক সভা, দোয়া মাহফিল ও তবারক বিতরণ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ইঞ্জিনিয়ার এ.কে.এম  মোসলেহ্ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ১৫ই আগস্ট হচ্ছে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুর শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস।
আর তাই এই দিবসটি বাংলার আপামর জনসাধারণ সকল ধর্ম বর্ন নির্বিশেষে দল ও জাতীর বেধা বেদ ভুলে গিয়ে একত্রিত হয়ে পালন করা উচিৎ, কারন বঙ্গবন্ধু এই দেশের জন্য যে অবদান রেখে গেছেন তা কোন দিন ভুলার নয়,তার কাছে সমগ্র বাংলাদেশের মানুষ ঋীনি। আর তিনি যদি এদেশের মাটিতে জন্মগ্রহন না করতেন তা হলে এই দেশ কোন দিন পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীদের হাত হতে মুক্তি লাভ করতে পারতো না, তার কারনেই আজ এই দেশ স্বাধীনতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। স্বাধীনতা যুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর ডাকে সারা দিয়ে তখন এ দেশের সর্বস্তরের আপামর জনতা মুক্তির সংগ্রামে ঝাপিয়ে পড়েন। নয় মাস রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের পর ত্রিশ লক্ষ শহিদের রক্ত ও দুই লক্ষ মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে অর্জিত হয় স্বাধীনতা। এসময় তিনি সমগ্র গ্রামবাসীকে কাদে কাদ রেখে এক সাথে আওয়ামীলীগের পক্ষে কাজ করার আহ্বান জানান।
গত মঙ্গলবার বাংলাদেশ ছাত্রলীগ,ঢাকা মহানগর উত্তর এর সহ-সভাপতি মো. ওমর ফারুক এর সভাপতিত্বে এবং মো. আসাদুজ্জামান মাষ্টার (বি.এসসি.বিএড) ও মো. মহিউদ্দিন আহমেদ, প্রচার সম্পাদক হোমনা উপজেলা যুবলীগ এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠিত শোক সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ,প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট মো.নজরুল ইসলাম সরকার,বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি সৈয়দ মো.ইসমাইল হোসেন, বর্তমান সহ-সভাপতি খন্দকার শাহ্ আলম,ফজলুল হক মোল্লা, বিশিষ্ট দানবীর ও সমাজ সেবক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রশিদ, হোমনা পৌর আওয়ামীলীগ সভাপতি ও কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামীলীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যান সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বাবুল, কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য ও হোমনা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিউদ্দিন খন্দকার,সাধারণ সম্পাদক মো. মোয়াজ্জেম হোসেন মোসলেম,বি আর ডি বি চেয়ারম্যান মো. মেজবাহ্ উদ্দিন সরকার, কুমিল্লা উত্তর জেলার বঙ্গবন্ধু জাতীয় যুব পরিষদের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান মো. খোরশেদ আলম, হোমনা উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মো. রফিকুল ইসলাম, বীর মু্িক্তযোদ্ধা মোসলেম উদ্দিন ভূইয়া, সহ-সভাপতি ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ,বীর মু্িক্তযোদ্ধা আঃ রউফ মোল্লা, বীর মু্িক্তযোদ্ধা শামসুল হক মোল্লা সদস্য ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী সৈয়দ মো. মোর্শেদ,বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহন মিয়া,কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ,মো. মনির হোসেন,সদস্য ৩নং দুলালপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, মো. নুরুল হক,সাবেক ইউপি সদস্য ও সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ, মো. শাহাব উদ্দিন, সাবেক ইউপি সদস্য ও সাধারণ সম্পাদক ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ, মো. মনিরুজ্জামান (মনির), সভাপতি ৬নং ওয়ার্ড যুরলীগ, মো. মোক্তার হোসেন, সাবেক ইউপি সদস্য ও বিশিষ্ট আওয়ামীলীগ নেতা, মো. গিয়াস উদ্দিন ও মো. খোর্শিদ মিয়া বিশিষ্ট আওয়ামীলীগ নেতা প্রমুখ সহ সকল গ্রামবাসী উপস্থিত ছিলেন।